জেনিনে ইসরাইলি বাহিনীর গুলিতে ৬ ফিলিস্তিনি নিহত – দৈনিক গণঅধিকার

জেনিনে ইসরাইলি বাহিনীর গুলিতে ৬ ফিলিস্তিনি নিহত

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ ৮ মার্চ, ২০২৩ | ১১:০১ 79 ভিউ
ফিলিস্তিনের অধিকৃত পশ্চিম তীরের জেনিন শহরে ইসরাইলি বাহিনীর অভিযানে অন্তত ছয় ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন। এ অভিযানে আহত হয়েছেন আরও ১১ জন। মঙ্গলবার ফিলিস্তিনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। খবর বিবিসির। আহতদের মধ্যে দুই জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে উল্লেখ করা হয়েছে ফিলিস্তিনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে। এদিকে, পাল্টা এক বিবৃতিতে ইসরাইলের সেনাবাহিনী জানিয়েছে, জেনিনের শরণার্থ ক্যাম্পে বর্তমানে অভিযান চালাচ্ছে দেশটির নিরাপত্তা বাহিনী এবং তা এখনো চলছে। এর বেশি বিস্তারিত আর কিছু উল্লেখ করেনি সেনাবাহিনী। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, শরণার্থী শিবিরের কাছে একটি বাড়িকে ঘেরাও করে গোলাবর্ষণ করে ইসরাইলের দখলদার বাহিনী। এতে ঘটেছে হতাহতের এ ঘটনা। ইসরাইলের প্রশাসনিক কর্মকর্তারা অবশ্য জেনিনে হতাহতের ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেছেন, এক সপ্তাহ আগে অধিকৃত পশ্চিম তীরের হুয়ারা গ্রামে চেক পয়েন্টের কাছে দুই ইসরাইলি নাগরিককে হত্যার জেরে পরিচালিত হচ্ছে এ অভিযান। জেনিনে যারা নিহত হয়েছেন, তাদের মধ্যে একজন এই হত্যার সঙ্গে সরাসরি সংশ্লিষ্ট বলে জানিয়েছেন তারা। ঘটনার প্রতিশোধ নিতে ওইদিন রাতেই হুয়ারা গ্রামে হামলা চালায় ইসরাইলি বসতকারীদের (সেটলার) একটি দল এবং ওই গ্রামে বসবাসরত ফিলিস্তিনিদের শত শত বাড়িঘর পুড়িয়ে দেয়। তারপর মঙ্গলবার শুরু হলো ইসরাইলি নিরাপত্তা বাহিনীর এ অভিযান। অভিযান শুরুর আগে সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে বলা হয়েছিল, হুয়ারা ও পার্শ্ববর্তী জেনিন ও নাবালুস শহরের শরণার্থী শিবিরে ‘উল্লেখযোগ্যসংখ্যক দাঙ্গাকারী’ আশ্রয় নিয়েছেন বলে গোপন সূত্রে সংবাদ পেয়েছেন তারা। আলজাজিরার প্রতিনিধি সারা খাইরাত জানিয়েছেন, নাবালুসের শরণার্থী শিবিরে ইতোমধ্যে অভিযান শুরু হয়েছে।

দৈনিক গণঅধিকার সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ট্যাগ:

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:


শীর্ষ সংবাদ:
আওয়ামী লীগের সমাবেশ শুরু, স্লোগান কম দেওয়ার আহ্বান নিউমার্কেট সায়েন্সল্যাব চাঁদাবাজদের স্বর্গরাজ্য ‘ঠেকায়ে কারও কাছে কিছু নেইনি, কাউরে উপকার করে যদি…’: এসআই ওবায়েদুর রহমান বীর বাঙালি মুক্তির শপথে অনড় উৎস চিহ্নিত, প্রতিকারে নেই কার্যকর উদ্যোগ চট্টগ্রামে নির্দেশনা মানছেন না ব্যবসায়ী-আড়তদাররা গাজায় ২,০০০ টন খাদ্য পাঠাল যুক্তরাজ্য ইউক্রেনের পতন ঠেকাবে যুক্তরাষ্ট্র ক্যানসারের টিউমার অপসারণে বিশ্ব রেকর্ড রুশ চিকিৎসকদের পুলিশ না চাইলে ফুটপাতে চাঁদাবাজি বন্ধ হবে না চীন পরিচালিত পাকিস্তানের সমুদ্র বন্দরে হামলা, নিহত ৮ দেশের জনগণ ত্রিশঙ্কু অবস্থায় রয়েছে: মির্জা আব্বাস সরকারি চাকরিতে ঢুকলেই পেনশন স্কিম বাধ্যতামূলক এবার সাকিবকে একহাত নিলেন রুমিন ফারহানা ‘দেশের মানুষ খেতে পায় না, আ.লীগ নেতারা বিদেশে সম্পদ গড়ে’ প্রধানমন্ত্রীর বলিষ্ঠ নেতৃত্বের কাছে বিএনপি-জামায়াত পরাজিত হয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী ১৮শ বছরের পুরোনো রোমান মূর্তি ঈদে যেসব ব্যাংকে নতুন নোট মিলবে ৩১ মার্চ থেকে প্রথম দিনেই এক্সপ্রেসওয়ের এফডিসি এক্সিট র‌্যাম্পে তীব্র যানজট জুনের শেষ সপ্তাহে হতে পারে এইচএসসি পরীক্ষা