ইসরায়েল-ফিলিস্তিন শান্তি আলোচনায় এগোচ্ছে চীন – দৈনিক গণঅধিকার

ইসরায়েল-ফিলিস্তিন শান্তি আলোচনায় এগোচ্ছে চীন

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ ১৯ এপ্রিল, ২০২৩ | ৫:১৭
ইরান-সৌদি আরবের পর এবার ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের মধ্যে শান্তি আলোচনা এগিয়ে নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে বেইজিং। এর মাধ্যমে মধ্যপ্রাচ্যে আরও বড় ভূমিকা রাখতে চলেছে দেশটি। মঙ্গলবার এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে এএফপি। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের মধ্যে শান্তি আলোচনা এগিয়ে নিতে চীন প্রস্তুত বলে চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী কিন গ্যাং ইসরায়েলি ও ফিলিস্তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে জানিয়েছেন। চীনের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম সিনহুয়া মঙ্গলবার এই তথ্য সামনে আনে। এএফপি বলছে, চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইসরায়েলি ও ফিলিস্তিনি শীর্ষ কূটনীতিকদের সঙ্গে পৃথক ফোন কলে কথা বলেন এবং সে সময়ই শান্তি আলোচনা নিয়ে এ কথা বলেন। বেইজিং নিজেকে আঞ্চলিক মধ্যস্থতাকারী হিসেবে অবস্থান পোক্ত করার লক্ষ্যে সম্প্রতি বেশ কিছু পদক্ষেপ নিয়েছে এবং এর মধ্যেই ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের সংকট নিরসনে শান্তি আলোচনা এগিয়ে নেওয়ার ঘোষণা এলো। সিনহুয়া এক সারসংক্ষেপে জানিয়েছে, ইসরায়েলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এলি কোহেনের সঙ্গে সোমবার ফোনে কিন শান্তি আলোচনা ফের শুরু করার বিষয়ে উৎসাহিত করেছেন এবং বলেছেন, চীন এর জন্য প্রয়োজনীয় সুযোগ-সুবিধা প্রদান করতে প্রস্তুত। অন্যদিকে কিন ফিলিস্তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রী রিয়াদ আল-মালিকিকে বলেছেন, বেইজিং যত তাড়াতাড়ি সম্ভব আলোচনা ফের শুরু করাকে সমর্থন করে। উভয় পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে ফোন কলে ‘দ্বিরাষ্ট্রভিত্তিক সমাধান’ বাস্তবায়নের ভিত্তিতে শান্তি আলোচনার জন্য চীনের আগ্রহের ওপর পররাষ্ট্রমন্ত্রী কিন গ্যাং জোর দিয়েছেন বলে সিনহুয়া জানিয়েছে। এ দিকে সৌদি আরবের বাদশাহ সালমানকে তেহরানে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসি। মূলত মধ্যপ্রাচ্যের চিরবৈরী দুই প্রতিদ্বন্দ্বী সৌদি আরব ও ইরানের মধ্যকার দ্বিপক্ষীয় সম্পর্কের বরফ গলানোয় সরাসরি অবদান রেখেছে চীন। ফলে প্রতিদ্বন্দ্বী এই দুই দেশের মধ্যে আবার বাণিজ্য এবং নিরাপত্তা সহযোগিতাও শুরু হবে। এরই ধারাবাহিকতায় এখন সৌদি বাদশাহকে ইরান সফরের আমন্ত্রণ জানাল তেহরান। এদিকে রাইসি বলেছেন, ইসরায়েল যদি ইরানের বিরুদ্ধে সামান্যতম কোনো ভুল পদক্ষেপ নেয়, তাহলে তেল আবিব ও হাইফা নগরীকে মাটির সঙ্গে মিশিয়ে দেওয়া হবে। মঙ্গলবার ইরানের জাতীয় সেনা দিবস উপলক্ষে আয়োজিত সামরিক কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানে দেওয়া বক্তৃতায় প্রেসিডেন্ট রাইসি এই হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন। অন্যদিকে আরব উপসাগরীয় অঞ্চলের দেশগুলোর দোহাকে বয়কটের দুই বছরের বেশি সময় পর ফের কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপন এবং দূতাবাস চালু করছে কাতার ও সংযুক্ত আরব আমিরাত।

দৈনিক গণঅধিকার সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ট্যাগ:

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:


শীর্ষ সংবাদ:
দৌলতপুর থানার ওসি রফিকুল ইসলামকে প্রত্যাহার কুষ্টিয়ায় ডিবি পুলিশের অভিযানে ১০০ পিচ ট্যাপেন্টাডল ট্যাবলেটসহ আটক ১ কুমারখালিতে দেবরের গোপনাঙ্গ ছেঁড়ার চেষ্টা বারখাদায় মসজিদের বালিতে পানি দিতে গিয়ে বৈদ্যুতিক শকে যুবক নিহত সাবেক দুই কর্মকর্তার দুর্নীতির দায় এড়ানোর সুযোগ সরকারের নেই: দুদু ৪ বছর সাজা শেষে ভারতে ফিরলেন শেভরন টোকেন চৌধুরীকে ফুলের মালা পরালেন ওসি সোনারগাঁওয়ে গৃহবধু হত্যার অভিযোগে স্বামীসহ আটক ২ এমপি আনার অপহরণ মামলায় ৩ আসামির ৮ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর ‘অপরাধীকে আমরা অপরাধী হিসেবে দেখি, অপরাধী শাস্তি পাবে’ ডুবুরি নামানো হয়েছে বাগজোলা খালে, বশিরহাট আদালতে সিয়ামকে হাজির নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে সুস্পষ্ট লঘুচাপ, সাগরে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত গাজাজুড়ে আবারও ভয়াবহ হামলায় অন্তত ৫০ জন নিহত কাউন্সিলরকে জুতাপেটা করা ঢাকা দক্ষিণের আলোচিত নারী কাউন্সিলর চামেলী বরখাস্ত ‘দক্ষতায় সমস্যা নেই, সমস্যা মানসিকতায়’: যুক্তরাষ্ট্রের সাথে সিরিজ হারের পর শান্ত অ্যান্ডি ফ্লাওয়ার কেন ভারতের কোচ হতে চান না ? ঝিনাইদহে প্রবাসীর স্ত্রীকে গলাকেটে হত্যা, আটক ২ জনতার ঢলে রাইসির চির বিদায় রাশিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় খারকিভে ৭ জন নিহত কাজী নজরুলের ‘মৃত্যুক্ষুধা’ ও ‘কুহেলিকা’ প্রসঙ্গে