খোঁজ নেন না সন্তানরা, মনের দু:খে কোটি টাকার সম্পত্তি সরকারকে দিলেন বৃদ্ধ! – দৈনিক গণঅধিকার

খোঁজ নেন না সন্তানরা, মনের দু:খে কোটি টাকার সম্পত্তি সরকারকে দিলেন বৃদ্ধ!

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ ৭ মার্চ, ২০২৩ | ৮:১৩ 64 ভিউ
ভারতের উত্তরপ্রদেশ রাজ্যের মুজাফফরনগরের বাসিন্দা নাথু সিং। তার বয়স ৮৫ বছর। স্ত্রী মারা যাওয়ার পর শেষ বয়সে একাকী জীবন পার করছেন তিনি। এক ছেলে ও চার মেয়ের মধ্যে কেউ তার খোঁজ নেন না। তাদের এমন আচরণে নিজের দেড় কোটি রুপির সম্পত্তি সরকারকে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি। এখন তার অবস্থান বৃদ্ধাশ্রমে। এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে- নাথু সিংকে সন্তানরা দেখভাল করেন না। বাড়ি এবং জমিসহ দেড় কোটি রুপির মালিক তিনি। এই দু:খে তিনি তার দেড় কোটি রুপির সম্পত্তি উত্তরপ্রদেশের সরকারকে উইল করে দিয়েছেন। নাথু সিং তার দেহ একটি মেডিকেল কলেজে দান করে দিয়েছেন। তিনি এটাও বলেছেন ছেলে এবং চার মেয়ে যেন তার শেষকৃত্যে অংশ না নেয়। তার ছেলে স্কুলশিক্ষক হিসেবে ওই রাজ্যের সাহারানপুরে কাজ করেন। চার মেয়ে সবাই বিবাহিত। স্ত্রীর মৃত্যুর পর থেকে তিনি আর বিয়েও করেননি। প্রায় সাত মাস আগে তিনি তার গ্রামে একটি বৃদ্ধাশ্রমে চলে যান। ৮৫ বছর বয়সী ওই বৃদ্ধ বলেন, ছেলে-মেয়ে থাকা সত্ত্বেও কেউ তার সঙ্গে দেখা করতে আসে না। এতে তার মনে অনেক কষ্ট। তাই তিনি রাজ্য সরকারের কাছে তার জমি উইল করে দিয়েছেন। তার মৃত্যুর পর উইল করা জমিতে একটি হাসপাতাল বা একটি স্কুল তৈরি করার কথা বলেন তিনি। টাইমস অব ইন্ডিয়ার সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ‘এই বয়সে ছেলে এবং পুত্রবধূর সঙ্গে আমার থাকার কথা ছিল; কিন্তু তারা আমার সঙ্গে ভালো আচরণ করেনি। তাই আমি সম্পত্তি হস্তান্তর করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’ উইলে আরও বলা হয়েছে- গবেষণা এবং একাডেমিক কাজে ব্যবহারের জন্য তার শরীর দান করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি। এ খবর জানার পর তার পরিবারের সদস্যরা এখনো এগিয়ে আসেননি। বৃদ্ধাশ্রমের ব্যবস্থাপক রেখা সিং বলেন, প্রায় ছয় মাস আগে নাথু সিং বৃদ্ধাশ্রমে বসবাস শুরু করার পর তার পরিবারের কেউ তাকে দেখতে আসেনি। সিং বলেছিলেন পরিবারের সদস্যদের এমন আচরণে তিনি খুব বিরক্ত। তাই তার সম্পত্তি রাজ্যের কাছে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। টাইমস অব ইন্ডিয়ার খবরে বলা হয়েছে- এলাকার সাবরেজিস্ট্রার বলেছেন নাথু সিংয়ের হলফনামা পেয়েছেন। তার মৃত্যুর পর এটি কার্যকর হবে।

দৈনিক গণঅধিকার সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ট্যাগ:

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:


শীর্ষ সংবাদ:
‘নির্বাচনি প্রিমিয়ার লিগে’ একাই খেলছেন পুতিন কুষ্টিয়ার মঙ্গলবাড়িয়ায় পিতা-পুত্রের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার খোকসায় একাধিক মামলা থাকা সত্ত্বেও চলছে ভেজাল গুড়ের কারখানা খোকসায় চলছে ভেজাল গুড়ের কারখানা আদালত বর্জন বিএনপির আইনজীবীদের রাজনৈতিক স্ট্যান্টবাজি: আইনমন্ত্রী বৃহস্পতিবার জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী কুষ্টিয়ার স্বনামধন্য ইংলিশ প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী। স্বনামধন্য ইংলিশ প্রতিষ্ঠান CEL এর প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী অনুষ্ঠিত ভূ-রাজনীতির ফাঁদে বাংলাদেশ শায়েস্তাগঞ্জ পূজা উদযাপন সাড়ে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি ওসির! ইসরাইলের অভিযান নিয়ে যা বললেন পুতিন বেরিয়ে আসছে ব্যাটারদের হতশ্রী চেহারা নিউজিল্যান্ডের কাছে ৮ উইকেটের হার উন্নয়নের কারণে আমরা উন্নত জীবন যাপন করতে পারছি: শিক্ষামন্ত্রী মূল্যস্ফীতি নিয়ন্ত্রণসহ চার অগ্রাধিকার নীতি ঘোষণা চালকের কিস্তি আর সংসারের চাকা ঘুরাল ‘টিম পজিটিভ বাংলাদেশ’ রাজনৈতিক প্রতিপক্ষকে মৃত্যুর মুখে ঠেলে দেওয়ার পরিণতি ভালো হয় না: ফখরুল পিটার হাসের বক্তব্যের প্রতিবাদে যা বললেন সাংবাদিকনেতারা ‘কোনো চুক্তিতে দেশে ফিরছেন না নওয়াজ শরিফ’ পদার্থে নোবেল পেলেন ৩ জন ব্যবসায়ী সিন্ডিকেট দমনে কঠোর অবস্থানে সরকার: বাহাউদ্দিন নাছিম