রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রে উৎপাদন শুরু – দৈনিক গণঅধিকার

রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রে উৎপাদন শুরু

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ | ৪:১৬
প্রকৃতি থেকে শীত বিদায় নিচ্ছে ধীরে ধীরে। সঙ্গে প্রতিদিনই বাড়ছে বিদ্যুতের চাহিদা। গতবছরের মতো সংকটে না পড়তে সরকার নানামুখী উদ্যোগ নিলেও বছরের শুরুতেই আসে ধাক্কা। কয়লার অভাবে বন্ধ হয়ে যায় দেশের অন্যতম বড় তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র রামপালের উৎপাদন। ঋণপত্র খুলতে না পারায় বাধ্য হয়ে আমদানি বন্ধ করতে হয়। তবে এক মাসের মাথায় কয়লার সরবরাহ স্বাভাবিক হওয়ায় আবারও উৎপাদনে ফিরেছে রামপাল তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্র। আপাতত ৩০ হাজার টন মজুত নিয়ে উৎপাদনে ফিরল কেন্দ্রটি। আরও ৫০ হাজার টন কয়লা আসবে আগামী ১৮ ফেব্রুয়ারি। এতে করে বর্তমান সংকট কাটবে। ঋণপত্র খুলতে জটিলতা তৈরি না হলে ভবিষ্যতে এ রকমটি হবে না বলে দাবি করেছেন প্রকল্প সংশ্লিষ্টরা। কয়লা সংকটে গত ১৪ জানুয়ারি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ৬৬০ মেগাওয়াটের প্রথম ইউনিটটি বন্ধ হয়ে যায়। তবে গত ৯ ফেব্রুয়ারি রাতে ৩০ হাজার টন কয়লা নিয়ে একটি জাহাজ রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্রে আসে। যেটি বুধবার কেন্দ্রে নেওয়া হয়। কয়লাবাহী আরেকটি জাহাজ ৫০ হাজার টন কয়লা নিয়ে আগামী ১৮ ফেব্রুয়ারি আসবে জানিয়ে রামপাল তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র পরিচালনার দায়িত্বে থাকা বাংলাদেশ-ইন্ডিয়া ফ্রেন্ডশিপ পাওয়ার কোম্পানি লিমিটেডের (বিআইএফ-পিসিএল) উপ-মহাব্যবস্থাপক আনোয়ারুল আজিম বলেন, কয়লার সরবরাহের বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ায় আজ (বুধবার) বিদ্যুৎ কেন্দ্রটির একটি ইউনিট চালু হচ্ছে। ৩০ হাজার টন কয়লা বিদ্যুৎ কেন্দ্রের জেটিতে এসে পৌঁছেছে। গত ৯ ফেব্রুয়ারি একটি জাহাজ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের জেটিতে ভিড়েছে। আগামী ১৮ ফেব্রুয়ারি ৫০ হাজার টন কয়লা নিয়ে আরেকটি কয়লাবাহী জাহাজ এসে পৌঁছানোর কথা রয়েছে। কয়লা আমদানিতে এলসি জটিলতা এখন কিছুটা স্বাভাবিক হয়েছে। তিনি আরও বলেন, ৩০ হাজার টন কয়লা নিয়ে যে জাহাজটি এসেছে, সেই কয়লা দিয়ে মাত্র ৬ দিন কেন্দ্রটির একটি ইউনিট চালানো যাবে। কেন্দ্রটির একটি ইউনিট চালু রাখতে দৈনিক কয়লার প্রয়োজন পাঁচ হাজার টন। পরবর্তীতে ৫০ হাজার মেট্রিক টন কয়লাবাহী জাহাজটি এলে সেটি দিয়ে কেন্দ্রটি আরও ১০ দিন চালানো যাবে। ইন্দোনেশিয়া থেকে একটি জাহাজ বিদ্যুৎ কেন্দ্রটির জেটিতে ভিড়তে ৭ থেকে ১০ দিন সময় লাগে। রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র সূত্র জানায়, গত ১৫ আগস্ট বিদ্যুৎ কেন্দ্রটির প্রথম ইউনিট পরীক্ষামূলক উৎপাদন শুরু করে। রাজধানীর বিদ্যুৎ সংকট দূর করতে গত ১৭ ডিসেম্বর রাত থেকে জাতীয় গ্রিডে কেন্দ্রটি থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু হয়। এলসি জটিলতায় কয়লা আমদানি ব্যাহত হওয়ায় কয়লা সংকটে গত ১৪ জানুয়ারি সকাল ৯টার দিকে বিদ্যুৎ কেন্দ্রটির উৎপাদন বন্ধ হয়ে যায়। কেন্দ্রটিতে কয়লা মজুতের সক্ষমতা রয়েছে তিন মাসের। নিয়ম অনুযায়ী, এক মাসের কয়লা মজুত রাখার বাধ্যবাধকতা থাকলেও এতদিন কেন্দ্রটিতে কয়লার কোনো মজুত ছিল না। উল্লেখ্য, বাংলাদেশ-ভারতের যৌথ বিনিয়োগে ১ হাজার ৩২০ মেগাওয়াটের দুই ইউনিটের বিদ্যুৎ কেন্দ্রটি বাগেরহাটের রামপালে অবস্থিত। গেল ১৭ ডিসেম্বর থেকে এই কেন্দ্রের একটি ইউনিট জাতীয় গ্রিডে বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু করে। এর উৎপাদনক্ষমতা ৬৬০ মেগাওয়াট। প্রতিদিন উৎপাদন করা হচ্ছিল ৫৬০ থেকে ৫৭০ মেগাওয়াট। আগামী জুনে দ্বিতীয় ইউনিটও বাণিজ্যিকভাবে বিদ্যুৎ উৎপাদনে যাওয়ার কথা রয়েছে।

দৈনিক গণঅধিকার সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ট্যাগ:

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:


শীর্ষ সংবাদ:
সাঁথিয়ায় বিয়ে বাড়িতে এসে নদীতে ডুবে কলেজছাত্র নিহত থানার সামনেই মহাসড়কে অবাধে চলছে অবৈধ যান নিখোঁজের ৭ ঘণ্টা পর কুমারখালির পদ্মা নদী থেকে তরুণের মরদেহ উদ্ধার রেলওয়েতে বিশাল নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি মুখোমুখি অবস্থানে ইসরায়েল ও হিজবুল্লাহ: বৃহত্তর সংঘর্ষের আশঙ্কা বাড়ছে লিচু খাওয়ার যত উপকারিতা রাসেলস ভাইপারের কামড় খেয়ে সাপ নিয়ে হাসপাতালে কৃষক যশোরে চাঁদা না পেয়ে ৭ লাখ টাকার জাল নষ্ট করেছে সন্ত্রাসীরা আটলান্টার পিচ নিয়ে স্কালোনি-মার্তিনেজের ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ‘অন্তত ১৭০ রান করা উচিত ছিল’ : শান্ত গোয়ালন্দে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ, অর্থের বিনিময়ে ধামাচাপা দিতে দৌড়ঝাপ দুই দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে দিল্লি গেলেন প্রধানমন্ত্রী কুষ্টিয়ার মিরপুরে এসএসসি ৯৯ ব্যাচের মিলনমেলা অনুষ্ঠিত হলের জানালার গ্রিল বিক্রি করতে গিয়ে ধরা চবি ছাত্রলীগের সাবেক নেতা মেসির রেকর্ডে কোপার শুরুতেই আর্জেন্টিনার জয় ইতালিকে হারিয়ে নক-আউটে স্পেন মুখোমুখি অবস্থানে সরকার ও সেনাবাহিনী, বিপদে ইসরায়েল হিটস্ট্রোক চিকিৎসায় বরফ পানির সিরামিক টাব! সুইস ব্যাংকে আর বাংলাদেশিদের আগ্রহ নেই পল্টনে এক অফিস থেকে ২ যুবকের মরদেহ উদ্ধার