যমুনা ফিউচার পার্কে চলছে শেষ সময়ের ঈদের কেনাকাটা – দৈনিক গণঅধিকার

যমুনা ফিউচার পার্কে চলছে শেষ সময়ের ঈদের কেনাকাটা

ডেস্ক নিউজ
আপডেটঃ ১৬ এপ্রিল, ২০২৩ | ১০:২৩
দক্ষিণ এশিয়ার বৃহত্তম শপিংমল যমুনা ফিউচার পার্কে এখন পুরোদমে চলছে শেষ সময়ের ঈদের কেনাকাটা। সকাল থেকেই নানা বয়সি মানুষের পদচারণায় মুখর পুরো মার্কেট। অনেকেই ঈদের কেনাকাটা আগেভাগেই সেরে ফেললেও কিছু ক্রেতা সব সময় শেষের দিকে এসে কেনাকাটা করতে পছন্দ করেন। তারাই এখন মুখর করে রেখেছেন যমুনা ফিউচার পার্ক। কেনাকাটা তাই চলছে পুরোদমে। এ শপিংমলে এক ছাদের নিচে আরামদায়ক পরিবেশে পোশাক, গয়না, কসমেটিসক, ক্রোকারিজ, জুতা, পারফিউম কেনাকাটা করেছেন হাজার হাজার মানুষ। তীব্র এ দাবদাহে এখানেই যেন শপিংয়ে যত স্বস্তি। এখানকার শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত পরিবেশে ঘণ্টার পর ঘণ্টা কাটিয়ে দিলেও ক্লান্তি আসে না। আর এ কারণেই যমুনা ফিউচার পার্ক হয়ে উঠেছে রাজধানীবাসীর ঈদ শপিংয়ের প্রিয় স্থান। দেশি-বিদেশি সব ব্র্যান্ডের সর্বাধুনিক ও ট্রেন্ডি পোশাকের কেনাকাটা সেখানে এখন তুঙ্গে। যমুনা ফিউচার পার্কে রোববার ঘুরে দেখা যায়, মেট্রো ফ্যাশন, আড়ং, ইনফিনিটি, কে-ক্রাফট, অঞ্জনস, বিগ বস, ফ্রিল্যান্ড, জিন্স অ্যান্ড কোম্পানি, টুয়েলভ, রেড, সেলিব্রেশনস, ডিমান্ড, মাইশা ওয়ার্ল্ড, একসটাসি, জেন্টল পার্ক, টিন’স ক্লাব, প্লাস পয়েন্ট, কান্ট্রি বয়, রেঞ্জ, সিক্স লাইফ স্টাইল, লা রিভ, আর্টিসান, টপ টেন মার্ট পোশাকের ব্র্যান্ড ও শপগুলোতে প্রচুর ক্রেতা সমাগম। এদিন সকাল থেকেই প্রচুর মানুষের আনাগোনা শুরু হয় যমুনা ফিউচার পার্কে। বিকাল থেকে আরও মানুষ আসতে শুরু করেন। সন্ধ্যায় অনেকে শপিংমলের ফুডকোর্টে ইফতার সেরে আবার কেনাকাটায় মেতে ওঠেন। এখানে কেনাকাটা করতে আসা মাহিদুল ইসলাম বলেন, পরিবার-পরিজনের জন্য কেনাকাটা করেছি যমুনা ফিউচার পার্ক থেকেই। ঈদ উপলক্ষ্যে এখানে প্রচুর ফ্যাশনেবল পোশাক আছে। নিজের পছন্দ অনুযায়ী পোশাক কিনেছি। এদিন বিকালে আড়ংয়ের আউটলেটে গিয়ে দেখা যায়, শুধু ক্রেতা আর ক্রেতা। যে যার পছন্দ অনুযায়ী পোশাক কিনছেন। বাড্ডা থেকে কেনাকাটা করতে এসেছিলেন রেবেকা সুলতানা। তিনি বলেন, যমুনা ফিউচার পার্কের সব আউটলেটগুলো বিশাল এবং পোশাকের কালেকশনও অনেক। ছেলেমেয়ে ও তাদের বাবার জন্য কেনাকাটা করতে এসেছি। কেনা হয়েছে জুতাও। যমুনা ফিউচার পার্কে পরিবার-পরিজন নিয়ে ঈদ শপিং করতে আসা মনিরুল মনির বলেন, যমুনা ফিউচার পার্কে এলে একসঙ্গে সবকিছু পেয়ে যাই। তাই সব সময় এখানেই ঈদের শপিং করি।

দৈনিক গণঅধিকার সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ট্যাগ:

সংশ্লিষ্ট সংবাদ:


শীর্ষ সংবাদ:
তাপদাহে আয় কমেছে নিন্ম আয়ের শ্রমজীবীদের গোদাগাড়ীতে মাদক মামলা দেওয়ায় পুলিশের বিরুদ্ধে অপপ্রচার আওয়ামী লীগের সমাবেশ শুরু, স্লোগান কম দেওয়ার আহ্বান নিউমার্কেট সায়েন্সল্যাব চাঁদাবাজদের স্বর্গরাজ্য ‘ঠেকায়ে কারও কাছে কিছু নেইনি, কাউরে উপকার করে যদি…’: এসআই ওবায়েদুর রহমান বীর বাঙালি মুক্তির শপথে অনড় উৎস চিহ্নিত, প্রতিকারে নেই কার্যকর উদ্যোগ চট্টগ্রামে নির্দেশনা মানছেন না ব্যবসায়ী-আড়তদাররা গাজায় ২,০০০ টন খাদ্য পাঠাল যুক্তরাজ্য ইউক্রেনের পতন ঠেকাবে যুক্তরাষ্ট্র ক্যানসারের টিউমার অপসারণে বিশ্ব রেকর্ড রুশ চিকিৎসকদের পুলিশ না চাইলে ফুটপাতে চাঁদাবাজি বন্ধ হবে না চীন পরিচালিত পাকিস্তানের সমুদ্র বন্দরে হামলা, নিহত ৮ দেশের জনগণ ত্রিশঙ্কু অবস্থায় রয়েছে: মির্জা আব্বাস সরকারি চাকরিতে ঢুকলেই পেনশন স্কিম বাধ্যতামূলক এবার সাকিবকে একহাত নিলেন রুমিন ফারহানা ‘দেশের মানুষ খেতে পায় না, আ.লীগ নেতারা বিদেশে সম্পদ গড়ে’ প্রধানমন্ত্রীর বলিষ্ঠ নেতৃত্বের কাছে বিএনপি-জামায়াত পরাজিত হয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী ১৮শ বছরের পুরোনো রোমান মূর্তি ঈদে যেসব ব্যাংকে নতুন নোট মিলবে ৩১ মার্চ থেকে